স্ত্রীকে ‘তাজমহল’ উপহার দিলেন এই ব্যক্তি

স্ত্রীকে ‘তাজমহল’ উপহার দিলেন এই ব্যক্তি

আন্তর্জাতিক স্লাইড

নভেম্বর ২৩, ২০২১ ৯:৫৯ পূর্বাহ্ণ

মুঘল সামাজ্যের অন্যতম সেরা সৃষ্টি তাজমহলকে যুগ যুগ ধরে শ্বাশত প্রেমের নির্দশন হিসেবে গণ্য করা হয়। ভারতের আগ্রায় যমুনা নদীর তীরে সাদা মার্বেল পাথরের তৈরি সমাধি সৌধটি ১৬৩২  সাল থেকে শুভ্রতা ছড়িয়ে দাঁড়িয়ে আছে প্রেমের প্রতীক হিসেবে। মুঘল সম্রাট শাহজাহান তার প্রিয়তম পত্নী মমতাজ মহলের মৃত্যুর পর তার স্মরণে নির্মাণ করেছিলেন তাজমহল। সেই থেকে প্রেমের প্রতীক হিসেবে বিশ্বজুড়ে তাজমহলের নাম উচ্চারিত হয়ে আসছে।

তবে মৃত নয়, স্ত্রীর জীবনদশাতেই  তাকে ‘তাজমহল’ বাড়ি উপহার দিলেন এই ব্যক্তি।

সোমবার ভারতীয় গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতের মধ্য প্রদেশের বুরহানপুরের বাসিন্দা আনন্দ চোকসে নামে এক ব্যক্তি তার স্ত্রীকে তাজমহলের রেপ্লিকা উপহার দেন।

আনন্দ সব সময় ভাবতেন শাহজাহান পত্নী মমতাজ যে বুরহানপুরে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছিলেন সেখানে কেন তাজমহল নির্মাণ করা হল। এই বিষয়টি সব সময় তাকে পীড়া দিত।

স্ত্রীর জন্য তাজমহলের আদলের বাড়ি নির্মাণের পেছনে তার সেই ভাবনাটাও ভূমিকা রেখেছিল।

অবশ্য  আনন্দের তাজমহল কোনো সমাধি সৌধ নয়। জীবিত স্ত্রীর সঙ্গেই এখানে বাস করতে চান তিনি। তার এই তাজমহলে রয়েছে চারটি শোওয়ার ঘর, বড় একটা হল ঘর, লাইব্রেরি আর ধ্যানের জন্য একটি কক্ষ।

 আর আসল তাজমহলের মতোই অন্ধকারে আনন্দের তাজমহলও দ্যুতি ছড়াবে। কারণ বাড়িতে আনন্দ আলোর ব্যবহারে এনেছে অভিনবত্ব। ২০১৮ সালে বাড়ির নির্মাণ শুরু করেছিলেন তিনি। তিন বছর পর বাড়িটির নির্মাণ সম্পন্ন হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *