মাওয়াঘাটে আধুনিক ও রুচিসম্মত খাবার হোটেল ‘কাঁচা লংকা’র যাত্রা শুরু

মাওয়াঘাটে আধুনিক ও রুচিসম্মত খাবার হোটেল ‘কাঁচা লংকা’র যাত্রা শুরু

দেশজুড়ে

শ্রীনগর (মুন্সিগঞ্জ) প্রতিনিধি:

বাঙালির স্বপ্নের সেতু পদ্মা সেতু। বিশে^র অন্যতম এই শ্রেষ্ঠ স্থাপনাকে ঘিরে গড়ে উঠেছে নানা ধরনের হোটেল ও রেস্তোরাঁ। এরই ভিড়ে শিমুলিয়া ঘাটে যাত্রা শুরু করলো আধুনিক, রুচিসম্মত ও শীততাপ নিয়ন্ত্রিত কাঁচা লংকা হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্ট।

শনিবার (৩ এপ্রিল) পুষ্পধারা প্রপার্টিজ লি. এর পরিচালকবৃন্দ এই হোটেলটির উদ্বোধন করেন। উদ্বোধনকালে সেখানে উপস্থিত ছিলেন কোম্পানির চেয়ারম্যান দেলোয়ার হোসেন, ব্যবস্থাপনা পরিচালক সৈয়দ আলী নূর ইসলাম, মার্কেটিং ডিরেক্টর মুহাম্মদ মনিরুজ্জামান (শাশ্বত মনির), ফিন্যান্স ডিরেক্টর ফয়সাল আহমেদ।

এছাড়াও অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন পুষ্পধারার প্রজেক্ট ম্যানেজার আব্দুল্লাহ আল মামুন, এজিএম রবিন মিয়া, প্রজেক্ট কর্মকর্তা বিল্লাল হোসেন, লিগ্যাল অ্যাডভাইজার মাহাবুবুর রহমান রুবেল, রিয়াজ প্রমুখ ব্যক্তিবৃন্দ।

দেলোয়ার হোসেন বলেন, ‘পদ্মা সেতু আর এখানকার মনোরম পরিবেশকে ঘিরে যে শত শত হোটেল রেস্তোরাঁ গড়ে উঠেছে তার মধ্যে কাঁচা লংকার খাবারের মান খুবই ভালো। এখানকার ঘরোয়া পরিবেশে মানসম্মত খাবার ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা আমাকে মুগ্ধ করেছে।’

গ্রাহক চাহিদা পূরণ করে সুনামের সাথে কাঁচা লংকা তার শ্রেষ্ঠত্ব ধরে রাখবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক সৈয়দ আলী নূর ইসলাম বলেন, ‘প্রতিটি খাবার আইটেমই ছিল ফ্রেশ ও সুস্বাদু। খেয়ে খুবই তৃপ্তি পেলাম।’

বিশ্বমানের সড়কের মধ্যে অন্যতম এই ঢাকা-মাওয়া রোড। অতি অল্প সময়ে ঢাকা থেকে মাওয়া এসে আধুনিক রুচিসম্মত খাবারের স্বাদ পেলাম, কাঁচা লংকা এগিয়ে যাক এই কামনা রইল’ বললেন ফিন্যান্স ডিরেক্টর ফয়সাল আহমেদ।

এ ব্যাপারে কথা হয় কাঁচা লংকা হোটেল এন্ড রেস্টুরেন্ট এর ব্যবস্থাপক শামীমের সাথে। তিনি বলেন, ‘আমাদের এখানে অতিথি ধারণ ক্ষমতা ১৫০জন। এখানে এসি রুম সহ একটি কনফারেন্স রুমও রয়েছে। আমরা গ্রাহক সেবা ও খাবারের মানের ব্যাপারে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে থাকি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *