‘মর্নিং ওয়াক’ থেকে ফিরে খান পাঁচ খাবার

‘মর্নিং ওয়াক’ থেকে ফিরে খান পাঁচ খাবার

লাইফস্টাইল

জুন ৬, ২০২২ ১২:০১ অপরাহ্ণ

সুস্থতাই সবার কাম্য। কারণ স্বাস্থ্যই সম্পদ। আর তাই স্বাস্থ্য ধরে রাখতে অনেকেই নিয়মিত মর্নিং ওয়াক বা প্রাতঃভ্রমণে যান। কেউ দৌঁড়ান, কেউ হাঁটেন। এর ফলে শরীর ও মন চাঙা হয় এবং সারাদিন কর্মক্ষম থাকা যায়।

কিন্তু সকাল সকাল ঘাম ঝরানোর পর বাড়ি ফিরে উপযুক্ত খাবার না খেলে অধরা থেকে যেতে পারে পুষ্টি। রইল পাঁচটি এমন খাবারের হদিস যা খাওয়া যেতে পারে প্রাতর্ভ্রমণ থেকে ফিরে।

কলা ও পিনাট বাটার

কলাতে থাকে প্রচুর পরিমাণ খনিজ পদার্থ ও শর্করা। ঘামের মধ্য দিয়ে শরীর থেকে বেরিয়ে যাওয়া খনিজ লবণের ঘাটতি পূরণ করতে কলা অত্যন্ত উপযোগী। অন্য দিকে, পিনাট বাটার দিতে পারে পর্যন্ত স্নেহ পদার্থের জোগান।

তরমুজ

গরমকালে তরমুজ খেতে এমনিতেই ভালো লাগে। পাশাপাশি বিশেষজ্ঞরা বলছেন, তরমুজে থাকে সাইট্রুলিন ও লাইকোপিন নামক দু’টি উপাদান। এই সাইট্রুলিন নাইট্রিক অক্সাইড উৎপাদন করে, আর লাইকোপিন শরীরকে ক্লান্তি থেকে রক্ষা করে।

অমলেট

ডিমে থাকে প্রচুর পরিমাণ প্রোটিন, ভিটামিন ও স্বাস্থ্যকর ফ্যাট। নামমাত্র তেলে তৈরি অমলেট খেলে হেঁটে আসার পর খিদে যেমন মিটবে, তেমনই মিলবে জরুরি পুষ্টিও। চাইলে অমলেটে দিয়ে দিতে পারেন বিভিন্ন ধরনের শাকসবজিও। এতে পুষ্টিগুণের মাত্রা বাড়বে।

প্রোটিন শরবত

অনেকেই এখন শরীরচর্চার পর দেহে প্রোটিনের মাত্রা বজায় রাখতে প্রোটিন শেক পান করেন। বিশেষ করে হোয়ে প্রোটিন বর্তমানে খুবই জনপ্রিয়। তবে যারা এই ধরনের প্রোটিন খেতে চান না তারা খেতে পারেন বিভিন্ন ধরনের স্মুদি কিংবা কম্বুচার মতো পানীয়ও।

মুরগির মাংস

তেল-মশলা ছাড়া অল্প গোলমরিচ দিয়ে সিদ্ধ করা মুরগির মাংস অত্যন্ত উপযোগী হতে পারে প্রাতর্ভ্রমণের পর। পেশি সুগঠিত করতে সিদ্ধ করা মুরগির মাংস ও স্টু খুবই কার্যকরী হতে পারে।

তবে মনে রাখবেন সব খাবার সবার সহ্য হয় না। বিশেষ করে অনেকেই শারীরিক বিভিন্ন সমস্যার জন্য সকালে হাঁটেন। তারা কী খাবেন, তা জেনে নিতে হবে চিকিৎসকদের থেকেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published.