বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক হাবীবুল্লাহ সিরাজী আর নেই

বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক হাবীবুল্লাহ সিরাজী আর নেই

জাতীয় স্লাইড

মে ২৫, ২০২১ ৯:৩২ পূর্বাহ্ণ

ডেস্ক রিপোর্ট: বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক কবি হাবীবুল্লাহ সিরাজী সোমবার (২৪ মে) মারা গেছেন। রাত ১১টার দিকে রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যুর বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন বাংলা একাডেমির সচিব এ এইচ এম লোকমান।

এর আগে গত ২৭ এপ্রিল হাবীবুল্লাহ সিরাজী পাকস্থলীজনিত সমস্যার কারণে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। এরপর তাকে লাইফ সাপোর্টে নেওয়া হয়।

কবি হাবীবুল্লাহ সিরাজী ১৯৪৮ সালের ৩১ ডিসেম্বর ফরিদপুর জেলায় জন্মগ্রহণ করেন। ফরিদপুর জিলা স্কুল থেকে মাধ্যমিক, ফরিদপুর রাজেন্দ্র কলেজ থেকে উচ্চমাধ্যমিক ও বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট) থেকে উচ্চশিক্ষা লাভ করেন। তিনি ২০১৮ সাল থেকে বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছিলেন।

হাবীবুল্লাহ সিরাজী ২০১৬ সালে একুশে পদক, ২০১০ সালে রূপসী বাংলা পুরস্কার এবং কবিতালাপ সাহিত্য পুরস্কার, ২০০৭ সালে বিষ্ণু দে পুরস্কার, ১৯৯১ সালে বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার, ১৯৮৯ সালে আলাওল সাহিত্য পুরস্কার, ১৯৮৭ সালে যশোর সাহিত্য পরিষদ পুরস্কারসহ দেশি-বিদেশি নানা পুরস্কার ও সম্মাননায় ভূষিত হয়েছেন।

তার কাব্যগ্রন্থ- ছিন্নভিন্ন অপরাহ্ণ, জয় বাংলা বলো রে ভাই, সারিবদ্ধ জ্যোৎস্না, সুগন্ধ ময়ূর লো, নির্বাচিত কবিতা, দাও বৃক্ষ দাও দিন, মোমশিল্পের ক্ষয়ক্ষতি, হাওয়া কলে জোড়াগাড়ি, নোনা জলে বুনো সংসার, স্বপ্নহীনতার পক্ষে, আমার একজনই বন্ধু, পোশাক বদলের পালা, প্রেমের কবিতা, কৃষ্ণ কৃপাণ ও অন্যান্য কবিতা, সিংহদরজা, বেদনার চল্লিশ আঙুল, ম্লান, ম্রিয়মাণ নয়, বিপ্লব বসত করে ঘরে, মুখোমুখি: তুচ্ছ, স্বনির্বাচিত প্রেমের কবিতা, হ্রী, কতো আছে জলছত্র, কতোদূর চেরাপুঞ্জি, কাদামাখা পা, ভুলের কোনো শুদ্ধ বানান নেই, একা ও করুণা, যমজ প্রণালী, আমার জ্যামিতি, পশ্চিমের গুপ্তচর ও কবিতাসমগ্র।

এছাড়া তার উপন্যাস কৃষ্ণপক্ষে অগ্নিকাণ্ড, পরাজয়, অনুবাদ মৌলানার মন: রুমীর কবিতা, আত্মজৈবনিক গ্রন্থ- আমার কুমার, গদ্যগ্রন্থ দ্বিতীয় পাঠ, মিশ্রমিল, গদ্যের গন্ধগোকুল, শিশুসাহিত্য ইল্লিবিল্লি, নাইপাই, রাজা হটপট, ফুঁ, ফুড়ুত্, মেঘভ্রমণ, ছয় লাইনের ভূত ও ছড়াপদ্য উল্লেখযোগ্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *