দাপুটে জয় পেল টাইগাররা

দাপুটে জয় পেল টাইগাররা

খেলা স্লাইড

মে ২৪, ২০২১ ৯:১১ পূর্বাহ্ণ

বাংলাদেশের বেঁধে দেয়া ২৫৮ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে সুবিধাজনক অবস্থায় প্রথম থেকেই ছিল না শ্রীলংকার ব্যাটসম্যানরা। টাইগার বোলারদের বোলিং তোপে বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে তারা। ৪৮ ওভারে সব উইকেট হারিয়ে ২৩৩ রানেই থেমে যায় শ্রীলংকা। এরই মাধ্যমে অনেক দিন পর জয়ের স্বাদ পেল টাইগাররা।

শ্রীলংকার হয়ে রান তাড়া করতে নামেন দানুশকা গুনাথিলাকা ও কুশল পেরেরা। শুরু থেকেই আক্রমণাত্মক খেলতে থাকে দুজন। তাসকিনের করা ইনিংসের চতুর্থ ওভারে টানা তিন বলে চার হাঁকান গুনাথিলাকা।

তবে পরের ওভারেই বাংলাদেশকে কাঙ্ক্ষিত ব্রেক থ্রু এনে দেন মিরাজ। কট এন্ড বোল্ডের মাধ্যমে গুনাথিলাকাকে ফেরান তিনি। ১৯ বলে ২১ রান করেন এ লংকান ব্যাটসম্যান।

ইনিংসের অষ্টম ওভারে বোলিংয়ে আসেন মুস্তাফিজ। তার করা দ্বিতীয় ডেলিভারি উড়িয়ে মারতে চেয়েছিলেন পাথুম নিশাংকা। তবে সোজা আফিফের ক্যাচে পরিণত হন তিনি। এর আগে করেন ৮ রান।

এরপর কুশল মেন্ডিসকে সঙ্গে নিয়ে জুটি গড়ায় মনোযোগ দেন অধিনায়ক পেরেরা। দুজনের জুটি যখন ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ নেয়ার অপেক্ষায়, তখনই আঘাত হানেন সাকিব। তার করা বলের ফ্লাইট বুঝতে না পেরে বল তুলে দেন মেন্ডিস। ঝাঁপিয়ে পড়ে দুর্দান্ত ক্যাচ ধরেন মিরাজ। মেন্ডিস ফেরেন ২৪ রানে।

মিরাজের হাত ধরে চতুর্থ সাফল্যের দেখা পায় বাংলাদেশ। তার করা ডেলিভারিটি কাট করতে চেয়েছিলেন কুশল পেরেরা। কিন্তু মিস করায় সোজা বোল্ড হয়ে যান তিনি। বোল্ড হওয়ার আগে ৩০ রান করেন লংকান অধিনায়ক।

নিজের করা পরবর্তী ওভারের প্রথম বলে আবারো আঘাত হানেন মিরাজ। তাকে সুইপ করতে গিয়ে ৯ রানে বোল্ড হন ধনঞ্জয় ডি সিলভা। ওয়ানডেতে এটি মিরাজের ৫০তম উইকেট। এরপর আসেন বান্দারাকেও বোল্ড করেন তিনি।

এর আগে মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক তামিম ইকবাল। তার ৫২, মুশফিকুর রহিমের ৮৪ ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের ৫৪ রানে ভর করে ছয় উইকেটে ২৫৭ রান সংগ্রহ করে টাইগাররা।

Leave a Reply

Your email address will not be published.