ঈদের দিন ভিন্ন ধাঁচে সেমাইয়ের ৫ পদ

ঈদের দিন ভিন্ন ধাঁচে সেমাইয়ের ৫ পদ

লাইফস্টাইল

মে ১২, ২০২১ ১২:০৯ অপরাহ্ণ

১৪ মে শুক্রবার আমাদের দেশে ঈদ অনুষ্ঠিত হবে। আমাদের দেশে ঈদের দিন সকালে টেবিলে আর যত খাবারই থাকুক না কেন, সেমাই রান্না থাকতেই হবে। সকালের শুরুটা সেমাই দিয়ে হওয়া চাই। মোটকথা ঈদের সকালে পূর্ণতা দিতেই সবাই হরেক রকম সেমাই রান্না করে থাকেন।
আজকের আয়োজনে ভিন্ন ধাঁচে পাঁচ রকম সেমাইয়ের রেসিপি দেয়া হলো:

সেমাই শনপাপড়ি:

উপকরণ

সেমাই  ১ প্যাকেট, ঘি আধা কাপ, চিনি আধা কাপ, কনডেন্সড মিল্ক  ১ কাপ, বাদাম, কিশমিশ পছন্দমতো, গুঁড়ো দুধ ২ টেবিল চামচ।

প্রস্তুত প্রণালি:

প্রথমে একটি ননস্টিকি পাত্রে ঘি গরম করে নিন। এবার সেমাই ছোট ছোট করে ভেঙে গরম ঘিয়ে মৃদু আঁচে ঘন ঘন নাড়তে থাকুন। সেমাই লালচে হয়ে এলে এতে চিনি, কনডেন্সড মিল্ক ও বাদাম-কিশমিশ মিশিয়ে আঠালো হওয়া পর্যন্ত নাড়তে থাকুন। চুলার আঁচ বন্ধ করে সহনীয় ঠাণ্ডা হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। এবার একটি সমান ট্রেতে সামান্য ঘি মেখে সেমাই ঢেলে চেপে চেপে সমান করে নিন। ফ্রিজে ১ ঘণ্টা জমাট বাঁধার জন্য রেখে দিন। এরপর ছোট ছোট টুকরো করে কেটে দুধের গুঁড়ো দিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার সেমাই শনপাপড়ি হয়ে যাবে।

সেমাই কেক:

উপকরণ

সেমাই ১ প্যাকেট, তেল আধা কাপ, ডিম চারটি, মাখন ১০০ গ্রাম, দুধ ১ কাপ, চিনি দেড় কাপ, বেকিং পাউডার ২ টেবিল চামচ, কাজু ও কিশমিশ পছন্দমতো, চেরি সাজানোর জন্য পরিমাণমতো।

প্রস্তুত প্রণালি:

প্রথমে তেল দিয়ে সেমাই হালকা বাদামি করে ভেজে রাখুন। এরপর ডিমগুলো হাতে অথবা এগ বিটারে ভালো করে ফেটিয়ে নিন, সঙ্গে বাটার, চিনি ও দুধ মিশিয়ে আবার ফেটাতে থাকুন। এরপর মিশ্রণের সঙ্গে সেমাই, বেকিং পাউডার, কাজু ও কিশমিশ মিশিয়ে নিন। এখন কেকের পাত্রে হালকা তেল মেখে সেমাই মিশ্রণটি ঢেলে ওভেনে ১৮০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ৪৫ মিনিট বেক করুন। যদি ওভেন না থাকে, তবে চুলায় তাওয়ার ওপর পাত্রটি রেখে মৃদু আঁচে ঢেকে ১ ঘণ্টা অপেক্ষা করুন। তৈরি হয়ে গেলে সার্ভিং ডিশে চেরি দিয়ে পরিবেশন করুন মজার সেমাই কেক।

সেমাইয়ের মালাই ক্ষীর:

উপকরণ

দুধ দেড় লিটার, চিনি পরিমাণমতো, মালাই আধা কাপ, কাজু ও কিশমিশ পছন্দমতো, পেস্তা পরিমাণমতো, কাঠবাদাম আধা কাপ, সেমাই এক কাপ, এলাচ ৩-৪টি, দারচিনি কয়েক টুকরো, ঘি ২ টেবিল চামচ, জাফরান সামান্য পরিমাণ।

প্রস্তুত প্রণালি

বাদামগুলো খোসা ছাড়িয়ে মোটা কুচি করে নিন। এরপর দেড় লিটার দুধ জ্বাল দিয়ে অর্ধেকের কম পরিমাণ করে রাখুন। এবার প্যানে ঘি দিয়ে গরম করুন। এলাচ দারচিনি দিয়ে একটু ভাজুন। এবার বাদাম কুচি, কিশমিশ ও সেমাই দিয়ে দিন এবং মৃদু আঁচে হালকা ভাজুন। ঘ্রাণ ছাড়লেই ঘন দুধ দিয়ে দিন। সেমাই সিদ্ধ হয়ে আসার সঙ্গে সঙ্গে দুধ ঘন হয়ে আসবে। সেমাই সিদ্ধ হয়ে গেলে মালাই দিয়ে দিন; জাফরান দিন। এরপর ভালো করে মিশিয়ে চুলা বন্ধ করে ফেলুন। এরপর ছোট ছোট বাটিতে এ ক্ষীর সাজান। ফ্রিজে রেখে ঠাণ্ডা করে বাদাম ও কিশমিশ ছিটিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার সেমাইয়ের মালাই ক্ষীর।

জর্দা সেমাই:

উপকরণ

সেমাই ১ প্যাকেট, চিনি ২ কাপ, নারকেল কুরানো ১ কাপ, কিশমিশ ২ টেবিল চামচ, চীনাবাদাম (ভাজা) ৩ টেবিল চামচ, দারচিনি ৩ টুকরো, তেজপাতা ২টি, ঘি ৪ টেবিল চামচ, পানি ২ কাপ, লবণ পরিমাণমতো।

প্রস্তুত প্রণালি

প্রথমে চুলায় কড়াই বসান। কড়াইতে ঘি দিয়ে গরম করুন। সামান্য গরম হলে ঘি দিন। এবার প্যাকেট সেমাইয়ের অর্ধেকটা ঘিয়ে ঢেলে দিয়ে ১০-১৫ মিনিট নাড়ুন, যাতে সেমাইটা ঘিয়ে ভাজা হয়। এরপর এতে কুরানো নারকেল দিয়ে নাড়তে থাকুন। কিছুক্ষণ পর পানি দিয়ে চুলার আঁচ কমিয়ে নাড়তে থাকুন। পানি শুকিয়ে এলে বাদাম, কিশমিশ, তেজপাতা, দারচিনি দিয়ে ১০ মিনিট জ্বালে দমে রাখুন। সেমাই ঝরঝরে হয়ে এলে নামিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার জর্দা সেমাই।

দুধ সেমাই:

উপকরণ

সেমাই ২০০ গ্রাম, চিনি হাফ কাপ, এলাচ ৩টি, দারচিনি ৩ টুকরা, তেজপাতা ১টি, দুধ এক লিটার।

প্রস্তুত প্রণালি

প্রথমে এক লিটার দুধ ভালো করে গরম করে কমাতে থাকুন, তাতে হাফ কাপ চিনি দিয়ে দিন। এরপর এক এক করে এলাচ, দারচিনি এবং থাকলে একটা তেজপাতা দিন। খালি একটা গরম কড়াইয়ে সেমাই ভেজে নিন। মচমচে হলে তা গরম দুধে ঢেলে দিন। হালকা গরম থাকতেই পরিবেশন করুন মজাদার দুধের সেমাই।

Leave a Reply

Your email address will not be published.