অক্সিজেন সংকটে করোনা আক্রান্তকে ‘অশ্বত্থ’ গাছের নিচে বসানোর পরামর্শ!

অক্সিজেন সংকটে করোনা আক্রান্তকে ‘অশ্বত্থ’ গাছের নিচে বসানোর পরামর্শ!

আন্তর্জাতিক স্লাইড

মে ১, ২০২১ ৮:১৮ পূর্বাহ্ণ

দক্ষিণ এশিয়ার বৃহত্তম দেশ ভারতে থামছেই না করোনাভাইরাসে মৃত্যুর মিছিল। হাসপাতালগুলোতে অক্সিজেনের জন্য হাহাকার চলছেই। সেই সঙ্গে অপর্যাপ্ত ব্যবস্থা মানুষকে ঠেলে দিচ্ছে মৃত্যুর দিকে। সারিবদ্ধ লাশবাহী অ্যাম্বুলেন্সই বলে দিচ্ছে দেশটিতে করোনা পরিস্থিতির ভয়াবহতা।

ভারতের উত্তরপ্রদেশও এর ব্যতিক্রম নয়। রাজ্যটিতে ইতোমধ্যে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা তিন লাখ ছাড়িয়ে গেছে। রোগী বৃদ্ধির কারণে হাসপাতালগুলোতে মিলছে না পর্যপ্ত সেবা। অক্সিজেনেরও ব্যাপক সংকট দেখা দিয়েছে।

এরইমধ্যে অক্সিজেনের ঘাটতি মেটাতে করোনা রোগীদের ‘অশ্বত্থ’ গাছের নিচে বসার পরামর্শ দিয়েছন এক পুলিশ কর্মকর্তা। যা নিয়ে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে।

আনন্দবাজার পত্রিকার এক প্রতিবেদনে বলা হয়, করোনা আক্রান্তের জন্য অক্সিজেনের খোঁজে দৌড়ে বেড়াচ্ছেন রোগীর স্বজনরা। স্থানীয় প্রয়াগরাজের বিধয়কের অক্সিজেন প্ল্যান্টেও ভিড় জমিয়েছিলেন অনেকে। সেখানে অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি মোকাবিলায় পুলিশ মোতোয়েন করা হয়েছে। এরইমধ্যে, বিধায়কের অক্সিজেন প্ল্যান্টে গিয়ে পুলিশের তাড়া খাবার কথাও জানিয়েছেন এক যুবক।

সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেন, অক্সিজেন প্ল্যান্টে কথা বলার মতো কেউ ছিল না। অক্সিজেনের জন্য কথা বলতে ভেতরে যেতেই পুলিশ তাড়া করেছে। স্থানীয় সব হাসপাতাল ঘুরেও অক্সিজেন পাইনি।

এদিকে একই অভিজ্ঞতা হয়েছে মায়ের জন্য অক্সিজেন আনতে যাওয়া আরেক যুবকের। বিজেপি বিধায়কের ওই প্ল্যান্টে গিয়ে অক্সিজেনের খোঁজ করেছিলেন তিনি। ঠিক তখনই তেড়ে আসা এক পুলিশ কর্মকর্তা তাকে বলেন, ‘মাকে অশ্বত্থ গাছের নীচে বসিয়ে রাখ। শরীরে অক্সিজেনের মাত্রা বেড়ে যাবে।’

এদিকে, এই ঘটনার ভিডিও ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়তেই বিষয়টি নিয়ে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে। সবার বক্তব্য, এতেই পরিষ্কার হয়ে যায়, করোনাভাইরাসের চিকিৎসা নিতে গিয়ে সাধারণ মানুষ কী ধরনের হয়রানি শিকার হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.